ক্ষোভে উত্তাল গ্রামীণফোনের প্রধান কার্যালয়

137

যৌক্তিক বেতনবৃদ্ধি ও অবৈধভাবে নির্বাচিত কর্মী প্রতিনিধিকে বরখাস্তের প্রতিবাদে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে জিপি হাউজে।

সাপ্তাহিক কর্মদিবসের প্রথম দিন রবিবার (২২ এপ্রিল) সকাল থেকে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় স্থাপিত গ্রামীণফোন লি. এর প্রধান কার্যালয় জিপি হাউজের প্রবেশপথে সাধারণ এমপ্লয়িরা অবস্থান নিয়ে তাদের প্রতিনিধি গ্রামীণফোন পিপল কাউন্সিলের নেতৃবৃন্দ সাধারণ এমপ্লয়িদের সাথে একাত্মতা প্রকাশ করে।

একইসাথে গ্রামীণফোন এমপ্লয়িজ ইউনিয়নও কর্মীদের এই দাবির সাথে সংহতি প্রকাশ করে তারা নানা স্লোগান দিতে থাকে।

বিক্ষোভের কারণ সম্পর্কে গ্রামীণফোন এমপ্লয়িজ ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক বলেন, গ্রামীণফোন পিপল কাউন্সিলের (জিপিপিসি) সাধারণ সম্পাদক বিএম জাহিদুর রহমানকে ফিরিয়ে নেয়া এবং কমপ্লায়েন্স হেড তোফায়েল আউয়ালকে প্রত্যাহারসহ ৭ দফা আদায়ে এই বিক্ষোভ চলছে।

দাবিগুলো হলো: জিপিপিসি’র বেতনবৃদ্ধির প্রস্তাবনা বাস্তবায়ন; কর্মী কমানোর সকল ধরনের প্রজেক্ট বন্ধ এবং চাকরির নিশ্চয়তা বিধান করা; কর্মীদের হুমকি-ধামকি এবং ভয়-ভীতি প্রদর্শন বন্ধ করে, কর্মীদের সাথে দুর্ব্যবহার বন্ধ করে কাজের পরিবেশ ফিরিয়ে আনা; কর্মীদের যেসকল সুযোগ সুবিধা বন্ধ করা হয়েছে, তা অনতিবিলম্বে চালু করা এবং ওভারটাইম না দিয়ে কোনো অতিরিক্ত কাজ করানো যাবে না; এবং কর্মীদের বিশ্রামের জন্য তারা যাতে নিয়মিত ছুটি ভোগ করতে পারে, তার ব্যবস্থা করা।